ন্যাম ফ্ল্যাট নিয়ে না থাকলে বরাদ্দ বাতিল: প্রধানমন্ত্রী |
বুধবার , ২১ নভেম্বর ২০১৮
  • প্রচ্ছদ » জাতীয় » ন্যাম ফ্ল্যাট নিয়ে না থাকলে বরাদ্দ বাতিল: প্রধানমন্ত্রী




ন্যাম ফ্ল্যাট নিয়ে না থাকলে বরাদ্দ বাতিল: প্রধানমন্ত্রী



নিউজ সময় : 15/04/2017


নিজস্ব প্রতিবেদক: ন্যাম ফ্ল্যাটে সংসদ সদস্যরা না থাকলে বরাদ্দ বাতিলের হুঁশিয়ারি দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী ও সংসদ নেতা শেখ হাসিনা। শনিবার রাজধানীর শরে বাংলানগরে সংসদ সচিবালয়ের কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের আবাসনের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, ‘যারা নিজেরা না থেকে ন্যাম ফ্ল্যাট নিয়ে রেখেছেন, তাদের নাম কাটা যাবে।’ জাতীয় সংসদ ভবনের দক্ষিণে মানিক মিয়া এভিনিউয়ের বিপরীত পাশে ন্যামে ফ্ল্যাটে অনেক সংসদ সদস্য বরাদ্দ নিয়েও যে নিজেরা থাকেন না। শেখ হাসিনা তাদের দলীয় বৈঠক এবং সংসদীয় দলের বৈঠকে একাধিকার তাদের হুঁশিয়ার করলেও কোনো ফল হয়নি।

শনিবারের অনুষ্ঠানে শেখ হাসিনা বলেন, ‘এটা আমি পার্টিতে বলেছি, শোনেন না। আজকে পাবলিকলি বললাম।’ এই রকম সংসদ সদস্যদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে প্রধান হুইপ আ স ম ফিরোজকে তাগিদ দিয়ে সংসদ নেতা বলেন, ‘চিফ হুইপ যদি এর ব্যবস্থা না নেন, তার ব্যবস্থা আমি নেব।’ আবাসন সুবিধা নিয়েও পরিবার নিয়ে যে সব সংসদ সদস্য অন্য স্থানে থাকছেন, তাদের বিষয়ে স্পিকার শিরীন শারমিন চৌধুরীর মতামতও চান সংসদ নেতা।

প্রধান হুইপ ফিরোজের বক্তব্যের সূত্র ধরেই প্রধানমন্ত্রীর এই হুঁশিয়ারি আসে। তিনি অনুষ্ঠানে সংসদ সদস্যদের আবাসনের স্থানগুলো সংস্কারের প্রয়োজনের কথা বলেছিলেন। ভবন রক্ষণাবেক্ষণ সঠিকভাবে না হওয়ার জন্য সংসদ সদস্যদের দায়ী করেন প্রধানমন্ত্রী।
‘চিফ হুইপ বললেন, ‘এমপিদের জায়গাগুলো নড়বড়ে হয়ে গেছে, নষ্ট হয়ে গেছে’। এটা তো এত তাড়াতাড়ি এত খারাপ হওয়ার কথা না !’ ‘ফ্ল্যাট নেবেন, কেউ থাকবেন না। যাদের রাখার ব্যবস্থা করেন, তারা কিন্তু সে ব্যাপারে যতœবান না। এরপর কারও ফ্ল্যাট যদি নষ্ট হয়, তাহলে এমপিদের কাছ থেকে টাকা কেটে নেব। আমি ছাড়ব না কিন্তু।’ ন্যাম ফ্ল্যাটে যারা থাকছেন না, তাদের নাখাল পাড়ার ‘এমপি হোস্টেলে’ থাকার পরামর্শ দিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “ঠিক আছে; নাখাল পাড়ায় থাকেন।

‘নিজেরা থেকে লোক রাখবেন.. ড্রাইভার রাখবেন, কাজের লোক রাখবেন বা নিজের ক্যাডার রাখবেন .. আমি জানি না। এভাবে যারা নিজেরা ব্যবহার করবেন না। নাখাল পাড়ায় এমপি হোস্টেল ওখানে থাকতে হবে।’ কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের জাতীয় সংসদ ভবন সংরক্ষণে আরও দায়িত্ববান হওয়ার অনুরোধ জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, এই ভবন যেন সুন্দর থাকে, সুরক্ষিত থাকে ও পরিচ্ছন্ন থাকে। কোথাও যেন কোনো ক্ষতি না হয়। ‘আমার চেম্বার থেকে বের হয়ে হাউজে যাব, দেখি মাঝখানে পানি পড়ে আছে। পানি এসে পড়বে কেন? যারা দায়িত্বে আছেন, তারা ভালোভাবে দায়িত্ব পালন করেন না, অবহেলা করেন; সেজন্যই এই অবস্থা।’


সংসদ ভবনের স্থাপত্যের গুরুত্বের কথা তুলে ধরে শেখ হাসিনা বলেন, ‘এটার স্থাপত্য শিল্পটা .. বিশ্বব্যাপী এর যথেষ্ট গুরুত্ব রয়েছে। বিশ্বের যতগুলো এ ধরনের স্থাপত্য রয়েছে, তার মধ্যে আমি মনে করি, অত্যন্ত চমৎকার একটা স্থাপত্য শিল্প।
‘আমরা অধিবেশন কক্ষে বসে মেঘের ডাক শুনতে পাই, রোদ উঠলে আলো এসে পড়ে।’
গৃহায়ণ ও গণপূর্ত মন্ত্রণালয় সচিবালয়ের কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের জন্য ৪৪৮টি ফ্ল্যাট নির্মাণ করেছে।
নতুন এই ফ্লাটগুলো যথাযথভাবে রক্ষণাবেক্ষণের ওপর গুরুত্বারোপ করে শেখ হাসিনা বলেন, ‘সরকারি মাল দারিয়া মে ঢাল; এই মানসিকতা যেন না থাকে। সরকার কার? আপনাদের। টাকা কার? দেশের মানুষের টাকা।’
গৃহায়ণ ও গণপূর্তমন্ত্রী মোশাররফ হোসেনের সভাপতিত্বে এই অনুষ্ঠানে শিরীন শারমিন চৌধুরী, আ স ম ফিরোজ এবং সংসদ সচিবালয়ের সচিব আবদুর রব হাওলাদার বক্তব্য রাখেন।
স্বাগত বক্তব্য রাখেন, গৃহায়ণ ও গণপূর্ত সচিব শহীদুল্লাহ খন্দকার।
এর আগে প্রধানমন্ত্রী রাজধানীর দৈনিক বাংলা মোড়ে নৌ-পরিবহণ মন্ত্রণালয়ের আওতাধীন শিপিং কর্পোরেশনের নবনির্মিত ২৫তলা বাণিজ্যিক ভবনের উদ্বোধন করেন।

Loading...
loading...



Editor : Zakir Hossain,
Office : Jeddah,Kilo3,Old Makkah Road Behind Al Rajhi Bank
Email : [email protected]